সড়ক দুর্ঘটনায় ভাই আইসিইউতে, খবর পেয়ে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে বোনের মৃত্যু

সুরমা ভিউ।।  হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ উপজেলার শেরপুরের পারকুম পাওয়ার প্লান্টের সামনে বেপরোয়া মোটরসাইকেলের ধাক্কায় এলাইছ মিয়া (৫০) নামে এক ব্যক্তি গুরুতর আহত হয়েছেন। গত ১০ই আগস্ট, শনিবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে। গুরুতর আহত এলাইছ মিয়া বর্তমানে সিলেট নগরীর পার্ক ভিউ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আই.সি.ইউ. ভর্তি আছেন।

এলাইছ মিয়া নবীগঞ্জের রাধাপুর ইউনিয়নের দিঘলবাক গ্রামের মৃত ওয়ারিদ উল্লাহর ছেলে।
জানা যায়, গত শনিবার শেরপুরের পারকুম পাওয়ার প্লান্টের সামনে বেপরোয়া মোটরসাইকেল একটি বাইসাইকেলকে সজোওে ধাক্কা দেয়। এসময় বাইসাইকেলে থাকা এলাইছ মিয়া (৫০) ছিটকে রাস্তায় পড়ে যান। পরে স্থানীয়রা তাকে দ্রুত সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেন। তার শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আই.সি.ইউ.তে সিট খালি না থাকায় চিকিৎসকদের পরামর্শে তাকে দ্রুত পার্ক ভিউ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আই.সি.ইউ.তে স্থানান্তর করা হয়। বর্তমানে তিনি সেখানে চিকিৎসাধীন আছেন।
এদিকে ভাইয়ের দুর্ঘটনার খবর পেয়ে ছোটবোন ফাহিমা বেগম (৩২) হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পথে মারা যান।
রাধাপুর ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য মো. ফখরুল মিয়া ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।