চামড়ার দাম কমিয়ে এতিমদের হক নষ্ট করা দুঃখজনক – আল্লামা নুর হোসাইন ক্বাসেমী

সুরমা ভিউ।।  জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশের মহাসচিব ও হেফাজতে ইসলাম ঢাকা মহানগরের আমীর আল্লামা নুর হোসাইন ক্বাসেমী সিলেটের বিভিন্ন মাদ্রাসার মুহতামিমদের সাথে মতবিনিময়কালে বলেন, কোরবানির চামড়ার মূল্য না থাকায় মাদরাসার অসহায় গরিব ছাত্র, এতিম, ফকির, মিসকিনরা বছরের একটি আয় থেকে বঞ্ছিত হলো। যা অত্যন্ত দুঃখজনক। কোরবানির চামড়া সাধারণত গরিব-মিসকিন ও এতিমের হক। যারা আল্লাহর সন্তুষ্টির জন্য গরু, মহিষ, ছাগল বা হালাল পশু কোরবানি করেন, তারা সেই পশুর চামড়া বিক্রির টাকা স্থানীয় মাদরাসার গরিব ছাত্র, এতিম-মিসকিন বা গরিব মানুষের মধ্যে ভাগ-বাটোয়ারা করে দিয়ে থাকেন। হাজার বছর ধরে এই রেওয়াজ চলে আসছে। কিন্তু কয়েক বছর হলো সেই চামড়ার দাম পাচ্ছেন না পশু কোরবানিদাতারা। সিন্ডিকেটের কারণেই এবার কোরবানির পশুর কাঁচা চামড়ার দামে মহাবিপর্যয় ঘটেছে।
আল্লামা ক্বাসেমী বলেন, এই চামড়ার দামে বিপর্যয় ঘটলেও বাংলাদেশ ট্যানার্স অ্যাসোসিয়েশন (বিটিএ) ও চামড়া ব্যবসায়ীদের কোনো লোকসান হচ্ছে না। শুধু তাই নয়, ট্যানারি পর্যন্ত চামড়া পৌঁছাতে চার স্তরের হাতবদলের যে চক্রটি কাজ করে তাদের কেউ এবার লোকসানও দিচ্ছে না। তবে ভয়াবহভাবে ক্ষতির মুখে পড়েছেন গরিব-মিসকিন ও মাদরাসার লিল্লাহ বোডিংয়ে থেকে পড়াশোনা করা এতিমরা। চামড়ার দাম কমিয়ে এতিমদের হক নষ্ট করা খুবই দুঃখজনক।
তিনি বলেন, ঈদের আগে ট্যানারি মালিক ও চামড়া ব্যবসায়ীদের সঙ্গে আলোচনা করে চামড়ার দাম নির্ধারণ করা হয়েছিল। কিন্তু দুঃখজনক হলো, তার কোনো প্রতিফলন দেখা যায়নি। তিনি অবিলম্বে জড়িতদের আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান।
রোববার (১৮ আগস্ট) মেজরটিলাস্থ জামেয়া আয়েশা সিদ্দিকা (রা.) মাদ্রাসায় সিলেটের বিভিন্ন মুহতামিমের সাথে মতবিনিময়কালে উপরোক্ত কথাগুলো বলেন।
এসময় উপস্থিত ছিলেন জামেয়া আরাবিয়া ধনুকান্দি মাদ্রাসার মুহতামিম মাওলানা মোস্তাক আহমদ খান, জামেয়া আয়শা সিদ্দিকা (রাহ.) এর মুহতামিম মাওলানা মখলিছুর রহমান রাজাগঞ্জী, জামেয়া লুগাতুল আরাবিয়ার প্রিন্সিপাল মাওলানা তাহুরুল হক জকিগঞ্জী, জামেয়া দারুল উলূম সিলেটের মুহতামিম মাওলানা আব্দুল মালিক চৌধুরী, জামেয়া ফরিদাবাদের মুহতামিম হাফিজ মাওলানা ফখরুজ্জামান, জামেয়া মাদানীয় বারিধারার শিক্ষক মাওলানা জয়নুল আবেদীন, জামেয়া মাহমুদিয়া সোবহানীঘাটের মুহতামিম আহমদ কবির, জামেয়া খাতুমুন নাবিয়্যিন সিলেটের পরিচালক মাওলানা আখতারুজ্জামান তালুকদার, মাদানী কাফেলা বাংলাদেশের সাধারণ সম্পাদক মাওলানা সালেহ আহমদ শাহবাগী, জামেয়া ইসলামিয়া মদিনাতুল উলূম সুনামপুরের মাওলানা ফয়ছল আহমদ, জামেয়া কদমতলী মাদ্রাসার মুহতামিম মাওলানা সাইদুর রহমান প্রমুখ।