বিশ্বনাথ-জগন্নাথপুর-লামাকাজি-সিংগেরকাছ সড়কে পরিবহন ধর্মঘটে বিপাকে যাত্রীরা

বিশ্বনাথ প্রতিনিধি।।  সিলেটের বিশ্বনাথ-জগন্নাথপুর সড়ক, বিশ্বনাথ-লামাকাজি সড়ক, রামপাশা-সিংগেরকাছ বাজার সড়কে আজ মঙ্গলবার সকাল ৬টা থেকে শুরু হয়েছে পরিবহন ধর্মঘট। অনির্দিষ্টকালের এই ধর্মঘটের প্রথম দিনেই চরম বিপাকে পড়েছেন দুই উপজেলার সাধারণ যাত্রীরা। খানাখন্দে ভরপুর হওয়ায় এ সড়কগুলো অনির্দিষ্টকালের জন্যে বাস-অটোরিকসা (সিএনজি) চলাচল বন্ধ করে দিয়েছেন পরিবহন শ্রমিকরা। এতে প্রবাসী অধ্যুষিত এলাকা বিশ্বনাথ-জগন্নাথপুর সকল ধরনের যাত্রীবাহী গাড়ি চলাচল বন্ধ রয়েছে। ফলে ওই দুই উপজেলার যাত্রীদের পুহাতে হচ্ছে চরম দূর্ভোগ।

এরির্পোট মঙ্গলবার সকাল ১২টায় লেখা পর্যন্ত পরিবহন ধর্মঘট চলছে।

জানা গেছে, জনগুরুত্বপূর্ণ বিশ্বনাথ-জগন্নাথপুর-লামাকাজি-রামপাশা-সিংগেরকাছ বাজার সড়কে বিভিন্ন স্থানে ছোটবড় অসংখ্য গর্ত সৃষ্টি হয়ে একেবারে বেহাল থাকায় যানবাহন ও পথচারীরা চলাচলে পোহাচ্ছেন চরম দুর্ভোগ। সড়কগুলো সংস্কারের জন্য দীর্ঘদিন ধরে দাবি জানিয়ে আসছেন পরিবহন শ্রমিক ও এলাকাবাসী। পরিবহন শ্রমিক-এলাকাবাসীর পক্ষ থেকে সড়কগুলোর বেহাল দশার কথা তুলে ধরে ইতিপূর্বে সড়কটি দুই (বিশ্বনাথ-জগন্নাথপুর) উপজেলার অংশ সংস্কারের জন্য স্থানীয় এমপি ও প্রশাসনের কাছে বার বার আহবান করা হলেও কোনো কাজ হয়নি বলে দাবী করেছেন পরিবহন শ্রমিকরা। সংস্কারের অভাবে সড়কটির অবস্থা অত্যান্ত নাজুক। গর্তে গর্তে পরিপূর্ণ থাকা সড়কে বৃষ্টির পানি জমে শত শত মিনি পুকুরে রুপান্তরিত হয়েছে। ফলে এতে যানবাহন চলাচল আরোও ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে উঠেছে। তাই যান-মালের নিরাপত্তার কথা চিন্তা করেই জনগুরুত্বপূর্ণ বিশ্বনাথ-জগন্নাথপুর সড়ক, বিশ্বনাথ-লামাকাজি সড়ক, রামপাশা-সিংগেরকাছ বাজার মঙ্গলবার সকাল ৬টা থেকে বাস-অটোরিকশা গাড়ি চলাচল বন্ধ ঘোষণা করেছেন পরিবহন শ্রমিকরা। ইতিপূর্বে সড়ক সংস্কারের দাবীতে গত ১৪ জুলাই থেকেও ওই সড়কে বাস চলাচল বন্ধ ঘোষণা করা হয়ে ছিল। পরবর্তিতে প্রশাসন ও সংশ্লিস্ট বিভাগের আশ্বাসে তা প্রত্যাহার করা হয়। কিন্তু দীর্ঘদিন ফেরিয়ে গেলেও তা সংস্কার না হওয়ায় পরিবর্তন শ্রমিকরা আবারও বাস চলাচল বন্ধের ঘোষণা দিয়েছেন। ফলে ওই সড়কে বাস চলাচল বন্ধ রয়েছে।

বাস-মাইক্রোবাস, অটোরিকশা (সিএনজি) গাড়ি ধর্মঘটের সত্যতা স্বীকার করে বিশ্বনাথ-জগন্নাথপুর, লামাকাজী-সিঙ্গেরকাছ সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশনের সভাপতি ফজর আলী মেম্বার সাংবাদিকদের বলেন, অল্প বৃষ্টিতেই সড়কের সেসব অংশে পানি জমে সৃষ্টি হচ্ছে দুর্ভোগের। আর এতে করে সড়কটি বাস চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। সাধারণ মানুষ ও শ্রমিকদের জীবনের নিরাপত্তার বিষয়টি বিবেচনা করে মঙ্গলবার সকাল থেকে অনির্দিষ্টকালের জন্যে এ সড়কে সিলেট থেকে বিশ্বনাথের সকল সড়কে যাত্রী বাস চলাচল বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।