জ্ঞান-বিজ্ঞানের উৎকর্ষ সাধনের মাধ্যমে হবিগঞ্জকে সমৃদ্ধ করতে হবে – বিচারপতি দস্তগীর হোসেন

সুরমা ভিউ::  সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট ডিভিশনের বিচারপতি সৈয়দ মুহাম্মদ দস্তগীর হোসেন বলেছেন, বাংলাদেশের অন্যতম সমৃদ্ধ ঐতিহ্যবাহী এলাকা হবিগঞ্জ। হবিগঞ্জের উন্নয়নে সবাইকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে হবে। জ্ঞান-বিজ্ঞানের উৎকর্ষ সাধনের মাধ্যমে দেশ ও জাতির জন্য সম্মান বয়ে নিয়ে আনতে হবে। আশাবাদী হয়ে একটি শৃঙ্খলাপূর্ণ জীবন পরিচালনা করলে সমৃদ্ধি অর্জন সম্ভব।
সিলেটে অবস্থানরত হবিগঞ্জবাসীদের সংগঠন ‘হবিগঞ্জ সমিতি সিলেট’-এর দ্বি-বার্ষিক সাধারণ সভা ও শিক্ষাবৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। গত শুক্রবার রাতে সিলেট জেলা পরিষদ মিলনায়তনে আয়োজিত অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন সমিতির সভাপতি আবু মো. আব্দুল হান্নান।
সমিতির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সহকারী অধ্যাপক একেএম মাহমুদুল আলমের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রফেসর ড. মো. সাহাব উদ্দিন, মদনমোহন কলেজ, সিলেট-এর সাবেক অধ্যক্ষ প্রফেসর ড. আবুল ফতেহ ফাত্তাহ, বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ড. শাহ লুৎফুর রহমান, শাবিপ্রবির প্রফেসর ড. মো. ফারুক মিয়া, হবিগঞ্জ সমিতি সিলেট-এর উপদেষ্টা প্রফেসর মো. শওকত আলী, সহ সভাপতি প্রফেসর শামীমা আখতার চৌধুরী, সিলেট জেলা কর আইনজীবী সমিতির সভাপতি এডভোকেট মো. আবুল ফজল, সহ সভাপতি ডা. এস এম হাবিবুল্লাহ সেলিম। বক্তব্য রাখেন দ্বিবার্ষিক সাধারণ সভা উদযাপন কমিটির আহবায়ক সহ সভাপতি সৈয়দ মিসবাহ উদ্দিন, স্মারক গ্রন্থ প্রকাশনা কমিটির আহবায়ক প্রফেসর ডা. মো. শাহনেওয়াজ চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদকের প্রতিবেদন পেশ করেন সাধারণ সম্পাদক শওকত হোসেন রিপন, অর্থ সম্পাদকের দ্বিবার্ষিক আর্থিক প্রতিবেদন উপস্থাপন করেন মো. আবু তাহের চৌধুরী। অনুষ্ঠানের শুরুতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন সমিতির সিনিয়র সহ সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. আবুল কালাম। পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত করেন হাফেজ মাওলানা শফিউল ইসলাম চৌধুরী। অনুষ্ঠানে হবিগঞ্জ সমিতি সিলেট এবং জয়নুলÑফাতেমা আবেদীন চৌধুরী শিক্ষা ট্রাস্ট্রের যৌথ উদ্যোগে বিভিন্ন্ বিশ্ববিদ্যালয় এবং কলেজে অধ্যয়নরত হবিগঞ্জের ৩০জন মেধাবী শিক্ষার্থীদের হাতে বৃত্তি প্রদান করা হয়। অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট ডিভিশনের বিচারপতি সৈয়দ মুহাম্মদ দস্তগীর হোসেন শিক্ষার্থীদের হাতে বৃত্তি তুলে দেন। অনুষ্ঠানে হবিগঞ্জ সমিতি সিলেট-এর সদস্য ছাড়াও সিলেটের বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ অংশগ্রহণ করেন। দ্বি-বার্ষিক সাধারণ সভায় সমিতির ২০১৯-২০-এর কার্যকরী কমিটি ঘোষণা করা হয়। প্রধান নির্বাচন কমিশনার ও সমিতির উপদেষ্টা প্রফেসর মো. শওকত আলী বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. আবুল কালামকে সভাপতি এবং শওকত হোসেন রিপনকে সাধারণ সম্পাদক করে ৩৫সদস্য বিশিষ্ট কার্যকরী কমিটির ঘোষণা করেন।