দিরাই রাজনগরে দুই পক্ষের সংঘর্ষ।। বন্দুকধারীর ভিডিও ভাইরাল

দিরাই প্রতিনিধি।। সুনামগঞ্জের দিরাই উপজেলার জগদল ইউনিয়নের (হালেয়া) রাজনগর গ্রামে পূর্ব বিরোধের জের ধরে সংঘর্ষে উভয় পক্ষের অন্তত ১২ জন আহত হয়েছে।

১৩ মে সোমবার বিকেল ৪ ঘটিকায় এ ঘটনা ঘটে। আহত চার জনকে দিরাই উপজেলা সাস্থ্য কমপ্লেক্স এ ভর্তি করা হয়েছে।

অন্যদের জগদল বাজারে স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছ ।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, উপজেলার জগদল ইউনিয়নের হালেয়া রাজনগর গ্রামের সানুর মিয়া ও লন্ডন প্রবাসী রুবেল গংদের মধ্যে এলাকায় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলছে।

এর জের ধরে সোমবার বিকালে রুবেল গংরা এলাকার রাস্তায় বাশের বে রা দিয়ে সানুর মিয়ার লোকজনের আসা যাওয়ার বাধা সৃষ্টি করে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, এ নিয়ে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে উভয়পক্ষের লোকজন দেশিয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। প্রায় ঘন্টাব্যাপী সংঘর্ষে উভয় পক্ষের হয়ে আহত হন ১২জন।

এ সময় রুবেল গংদের পক্ষের ভাড়াটিয়া সন্ত্রাসী অন্য দুইটি মামলার বন্দুক যুদ্ধের আসামি মোহন মিয়া আলমগীর মিয়ার কাছে বন্দুকের গুলির অনুমতি চায়। যা ধারণ করা ভিডিওতে স্পষ্ট শোনা গেছে।ভিডিওটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে ভাইরাল হয়।

এ ব্যাপারে সানুর মিয়া দিরাই থানায় ইকবাল কে প্রধান আসামি করে ২১ জনের নাম উল্লেখ করে একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন। অভিযোগের প্রেক্ষিতে এস আই তাহের মোল্লা সরজমিন তদন্ত করে বাশের বেরা ভেংগে দিয়ে এসেছেন।ঘটনার বর্ননা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তার নিকট পেশ করবেন।

স্থানীয়দের সাথে আলাপ করে জানা যায় মোহন মিয়া সামান্য বিষয় নিয়ে কাথা কাটাকাটি হলেই অবৈধ বন্দুক ব্যবহার করেন।এ নিয়ে নিরীহ মানুষ আতংকে থাকেন, তারা অচিরেই অবৈধ বন্দুক সহ মোহন কে গ্রেপ্তার করার জন্য প্রশাসনের প্রতি জোড় দাবি জানিয়েছেন।

ভিডিও দেখতে ক্লিক করুন

You May Also Like