জাতীয় কাউন্সিলের প্রস্তুতি নিচ্ছে বিএনপি: ফখরুল

বিএনপির সপ্তম জাতীয় কাউন্সিলের প্রস্ততি নেয়া হচ্ছে বলে জানিয়েছেন দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

শনিবার (২২ জুন) দলের প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমানের মাজারে পুস্পমাল্য অর্পণের পর সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি একথা জানান।

মির্জা ফখরুল বলেন, দলের জাতীয় কাউন্সিলের আমরা প্রস্তুতি নিচ্ছি। ইতোমধ্যে আমাদের সাংগঠনিক কার্য্ক্রম, পূনর্গঠনের কার্য্ক্রম শুরু হয়েছে জেলা ও অঙ্গ-সংগঠনগুলোতে।

২০১৬ সালের ১৯ মার্চ বিএনপির ষষ্ঠ জাতীয় কাউন্সিল অনুষ্ঠিত হয়।

স্থায়ী কমিটিতে মনোনয়ন পাওয়া দুই সদস্য সেলিমা রহমান ও ইকবাল হাসান মাহমুদ টুকুকে নিয়ে বিএনপি মহাসচিব সকাল সাড়ে ১১টায় শেরে বাংলা নগরে দলের প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমানের মাজারে পুস্পমাল্য অর্পন করেন।

তিনি বলেন, দলের গঠনতন্ত্র অনুযায়ী জাতীয় স্থায়ী কমিটিতে শূণ্যপদগুলোতে আমাদের দুই জন প্রবীণ নেতা যারা ইতোমধ্যেই দলের মধ্যে দীর্ঘকাল ধরে তাদের অবদান রেখেছেন এবং তাদের নেতৃত্ব প্রতিষ্ঠা করেছেন। জনগণের মধ্যে তাদের একটি অত্যন্ত ইতিবাচক ভাবমূর্তি রয়েছে, তাদেরকে স্থায়ী কমিটির সদস্য পদে নির্বাচিত করা হয়েছে।

স্থায়ী কমিটির যে তিনটি পদ শূণ্য আছে তা কবে নাগাদ পুরণ হবে জানতে চাইলে তিনি বলেন, সেগুলো প্রয়োজনে যথাসময়ে পূরণ করা হবে।

এ সময়ে স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম, চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা কাউন্সিলের সদস্য হাবিবুর রহমান হাবিব, যুগ্ম মহাসচিব মজিবুর রহমান সারোয়ার, শামা ওবায়েদ, বিশেষ সম্পাদক শামসুর রহমান শিমুল বিশ্বাস, কেন্দ্রীয় নেতা শিরিন সুলতানা, মাসুদ আহমেদ তালুকদার, নাদিম মোস্তফা, সেলিম রেজা হাবিব, আমিরুল ইসলাম খান আলিম, মাহবুবু্ল হক নান্নু, সাইফুল আলম নিরব, মোরতাজুল করীম বাদরু, শফিউল বারী বাবু, হেলেন জেরিন খান, আহসানুল্লাহ হাসান, চেয়ারপারসনের প্রেস উইংয়ের সদস্য শায়রুল কবির খান, শামসুদ্দিন দিদার প্রমূখ নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

গত ১৯ জুন স্থায়ী কমিটিতে সেলিমা রহমান ও ইকবাল হাসান মাহমুদ টুকু মনোনয়ন পান। তারা দুজনই দলের ভাইস চেয়ারম্যান ছিলেন। তাদের মনোনয়নের পর ১৯ সদস্যের স্থায়ী কমিটিতে সদস্য সংখ্যা দাঁড়ালো ১৭।